ঢাকা , বৃহস্পতিবার, ২৫ এপ্রিল ২০২৪, ১২ বৈশাখ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

ইরাকে বিয়ের অনুষ্ঠানে অগ্নিকাণ্ডে নিহত ১১৩

  • ডেস্ক :
  • আপডেট সময় ১২:৩৮ অপরাহ্ন, বুধবার, ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২৩
  • 192

ইরাকের উত্তরাঞ্চলীয় নিনেভেহ প্রদেশে একটি বিয়ের অনুষ্ঠানে অগ্নিকাণ্ডে অন্তত ১১৩ জন নিহত হয়েছেন। আহত হয়েছেন আরও দেড় শতাধিক মানুষ। আল-হামদানিয়ার একটি বিশাল ইভেন্ট হলে মঙ্গলবার রাতে এই বিয়ের অনুষ্ঠান চলছিল।

ইরাকের রাষ্ট্রীয় গণমাধ্যমের বরাত দিয়ে বার্তা সংস্থা রয়টার্স এ খবর জানিয়েছে।

নিনেভের ডেপুটি গভর্নর হাসান আল-আল্লাক বার্তা সংস্থা রয়টার্সকে বলেন, এ পর্যন্ত ১১৩ জনের মৃত্যুর বিষয়টি নিশ্চিত হওয়া গেছে। স্থানীয় সময় আনুমানিক মঙ্গলবার (২৬ সেপ্টেম্বর) দিনগত রাত ১০টা ৪৫ মিনিটে আগুনের সূত্রপাত হয় বলে জানা গেছে।

তিনি আরও বলেন, অগ্নিকাণ্ডে এখনও পর্যন্ত হতাহতের চূড়ান্ত পরিসংখ্যান পাওয়া যায়নি। এতে মৃতের সংখ্যা আরও বাড়তে পারে বলে ধারণা করা যাচ্ছে।

ইরাকের বেসামরিক প্রতিরক্ষা বিভাগ জানায়, আতশবাজি থেকে অগ্নিকাণ্ড ঘটেছে বলে প্রাথমিক প্রতিবেদনে ইঙ্গিত করা হয়েছে।

ইরাকের প্রধানমন্ত্রী মোহাম্মদ শিয়া আল-সুদানী আগুনের ঘটনা তদন্তের নির্দেশ দিয়েছেন এবং দেশটির স্বরাষ্ট্র ও স্বাস্থ্য কর্মকর্তাদের জরুরি সহায়তা দিতে বলেছেন। প্রধানমন্ত্রী কার্যালয়ের এক বিবৃতিতে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

ভিডিও ফুটেজে দেখা গেছে, দমকলকর্মীরা জীবিতদের খোঁজে পুড়ে যাওয়া ভবনের ওপর উঠছেন। দুর্ঘটনাস্থলে অ্যাম্বুলেন্স ও মেডিকেল ক্রুদের পাঠানো হয়েছে।

ট্যাগস

ইরাকে বিয়ের অনুষ্ঠানে অগ্নিকাণ্ডে নিহত ১১৩

আপডেট সময় ১২:৩৮ অপরাহ্ন, বুধবার, ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২৩

ইরাকের উত্তরাঞ্চলীয় নিনেভেহ প্রদেশে একটি বিয়ের অনুষ্ঠানে অগ্নিকাণ্ডে অন্তত ১১৩ জন নিহত হয়েছেন। আহত হয়েছেন আরও দেড় শতাধিক মানুষ। আল-হামদানিয়ার একটি বিশাল ইভেন্ট হলে মঙ্গলবার রাতে এই বিয়ের অনুষ্ঠান চলছিল।

ইরাকের রাষ্ট্রীয় গণমাধ্যমের বরাত দিয়ে বার্তা সংস্থা রয়টার্স এ খবর জানিয়েছে।

নিনেভের ডেপুটি গভর্নর হাসান আল-আল্লাক বার্তা সংস্থা রয়টার্সকে বলেন, এ পর্যন্ত ১১৩ জনের মৃত্যুর বিষয়টি নিশ্চিত হওয়া গেছে। স্থানীয় সময় আনুমানিক মঙ্গলবার (২৬ সেপ্টেম্বর) দিনগত রাত ১০টা ৪৫ মিনিটে আগুনের সূত্রপাত হয় বলে জানা গেছে।

তিনি আরও বলেন, অগ্নিকাণ্ডে এখনও পর্যন্ত হতাহতের চূড়ান্ত পরিসংখ্যান পাওয়া যায়নি। এতে মৃতের সংখ্যা আরও বাড়তে পারে বলে ধারণা করা যাচ্ছে।

ইরাকের বেসামরিক প্রতিরক্ষা বিভাগ জানায়, আতশবাজি থেকে অগ্নিকাণ্ড ঘটেছে বলে প্রাথমিক প্রতিবেদনে ইঙ্গিত করা হয়েছে।

ইরাকের প্রধানমন্ত্রী মোহাম্মদ শিয়া আল-সুদানী আগুনের ঘটনা তদন্তের নির্দেশ দিয়েছেন এবং দেশটির স্বরাষ্ট্র ও স্বাস্থ্য কর্মকর্তাদের জরুরি সহায়তা দিতে বলেছেন। প্রধানমন্ত্রী কার্যালয়ের এক বিবৃতিতে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

ভিডিও ফুটেজে দেখা গেছে, দমকলকর্মীরা জীবিতদের খোঁজে পুড়ে যাওয়া ভবনের ওপর উঠছেন। দুর্ঘটনাস্থলে অ্যাম্বুলেন্স ও মেডিকেল ক্রুদের পাঠানো হয়েছে।