ঢাকা , বৃহস্পতিবার, ২৫ এপ্রিল ২০২৪, ১২ বৈশাখ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

বোরাক রিয়েল এস্টেটের বিনিয়োগকারীরা ঠকবে না

  • ডেস্ক :
  • আপডেট সময় ০১:২১ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ১৯ অক্টোবর ২০২৩
  • 90

বোরাক রিয়েল এস্টেট লিমিটেডের অংশিদাররা কখনো ঠকবেন না। ১৯৯১ সালে এই ব্যবসা শুরু করেছি। ওয়েস্টিন হোটেল শুরু করার সময় সবাই পাগল বলতে। আজকে এশিয়ার মধ্যে সবচেয়ে বেশি লাভবান ওয়েস্টিন হোটেল বলে জানিয়েছে ইউনিক গ্রুপের ব্যবস্থাপনা পরিচালক (এমডি) নূর আলী।

বুধবার (১৮ অক্টোবর) রাজধানীর হোটেল শেরাটনে বোরাক রিয়েল এস্টেট লিমিটেডের রোড শো অনুষ্ঠানে তিনি এসব কথা বলেন।

তিনি বলেন, বোরাক রিয়েল এস্টেট একটি মাইলফলক প্রজেক্ট এবং বাঙালীদের জন্য এটি হবে একটি দ্বিতীয় গন্তব্য। এ প্রজেক্টের বাইরে আমরা কুয়াকাটাতে ১৪০ বিঘা জায়গার উপর একটি বড় ধরনের রিসোর্ট করবো যেটা সমুদ্রকে আকৃষ্ট করবে। কুয়াকাটা থেকে সুন্দরবন ট্যুর প্রোগ্রাম করবো। এ ধরনের আপকামিং আরও প্রজেক্ট আমাদের আসবে।

তিনি আরও বলেন, কক্সবাজারে ইতিমধ্যে আমরা ফাইভ স্টার হোটেল এ্যান্ড রিসোর্ট করার প্লান করছি। এ সকল প্রজেক্টের বাইরে সোনারগাঁও ইকোনোমিক জোন ঘিরে আমাদের নতুন নতুন পরিকল্পনা রয়েছে। সেখানে ইন্ডাস্ট্রির বাইরে যেন রিসোর্ট হয়, খেলার মাঠ হয়, শিশুদের বিনোদনের যথেষ্ট ব্যবস্থাসহ নতুন প্রজন্মের জন্য অনেক ব্যবস্থাই সেখানে থাকবে।

বোরাকের সাথে যারা সম্পৃক্ত হবে তারা কখনোই ঠকবে না। এ বিশ্বাস আমার আছে। ইতোমধ্যে আপনারা দেখেছেন, আমাদের কুয়াকাটার ইকো রিসোর্ট আস্তে আস্তে বহুদূর গিয়েছে। ৬শত মেগাওয়াট পাওয়ার প্ল্যান্ট ইতোমধ্যেই সম্পন্ন হওয়ার পথে। আমি আশাকরি আমাদের বোরাকের আইপিও সাকসেসফুল হবে এবং শেয়ারহোল্ডাররা যাতে সন্তুষ্ট থাকেন একইসাথে তাদের লাভের দিক বিবেচনায় রেখে আমরা সবকিছু সেভাবেই করবোবলে জানিয়েছেন ইউনিক গ্রুপের এমডি।

ট্যাগস

বোরাক রিয়েল এস্টেটের বিনিয়োগকারীরা ঠকবে না

আপডেট সময় ০১:২১ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ১৯ অক্টোবর ২০২৩

বোরাক রিয়েল এস্টেট লিমিটেডের অংশিদাররা কখনো ঠকবেন না। ১৯৯১ সালে এই ব্যবসা শুরু করেছি। ওয়েস্টিন হোটেল শুরু করার সময় সবাই পাগল বলতে। আজকে এশিয়ার মধ্যে সবচেয়ে বেশি লাভবান ওয়েস্টিন হোটেল বলে জানিয়েছে ইউনিক গ্রুপের ব্যবস্থাপনা পরিচালক (এমডি) নূর আলী।

বুধবার (১৮ অক্টোবর) রাজধানীর হোটেল শেরাটনে বোরাক রিয়েল এস্টেট লিমিটেডের রোড শো অনুষ্ঠানে তিনি এসব কথা বলেন।

তিনি বলেন, বোরাক রিয়েল এস্টেট একটি মাইলফলক প্রজেক্ট এবং বাঙালীদের জন্য এটি হবে একটি দ্বিতীয় গন্তব্য। এ প্রজেক্টের বাইরে আমরা কুয়াকাটাতে ১৪০ বিঘা জায়গার উপর একটি বড় ধরনের রিসোর্ট করবো যেটা সমুদ্রকে আকৃষ্ট করবে। কুয়াকাটা থেকে সুন্দরবন ট্যুর প্রোগ্রাম করবো। এ ধরনের আপকামিং আরও প্রজেক্ট আমাদের আসবে।

তিনি আরও বলেন, কক্সবাজারে ইতিমধ্যে আমরা ফাইভ স্টার হোটেল এ্যান্ড রিসোর্ট করার প্লান করছি। এ সকল প্রজেক্টের বাইরে সোনারগাঁও ইকোনোমিক জোন ঘিরে আমাদের নতুন নতুন পরিকল্পনা রয়েছে। সেখানে ইন্ডাস্ট্রির বাইরে যেন রিসোর্ট হয়, খেলার মাঠ হয়, শিশুদের বিনোদনের যথেষ্ট ব্যবস্থাসহ নতুন প্রজন্মের জন্য অনেক ব্যবস্থাই সেখানে থাকবে।

বোরাকের সাথে যারা সম্পৃক্ত হবে তারা কখনোই ঠকবে না। এ বিশ্বাস আমার আছে। ইতোমধ্যে আপনারা দেখেছেন, আমাদের কুয়াকাটার ইকো রিসোর্ট আস্তে আস্তে বহুদূর গিয়েছে। ৬শত মেগাওয়াট পাওয়ার প্ল্যান্ট ইতোমধ্যেই সম্পন্ন হওয়ার পথে। আমি আশাকরি আমাদের বোরাকের আইপিও সাকসেসফুল হবে এবং শেয়ারহোল্ডাররা যাতে সন্তুষ্ট থাকেন একইসাথে তাদের লাভের দিক বিবেচনায় রেখে আমরা সবকিছু সেভাবেই করবোবলে জানিয়েছেন ইউনিক গ্রুপের এমডি।