ঢাকা , মঙ্গলবার, ২৩ জুলাই ২০২৪, ৮ শ্রাবণ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

কুকুরের মাংসের বিরিয়ানি!

  • ডেস্ক :
  • আপডেট সময় ১২:৩৫ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ১৪ ডিসেম্বর ২০২৩
  • 116

খুলনায় কুকুরের মাংস দিয়ে তৈরি বিরিয়ানি বিক্রি করার অভিযোগে চার জনকে আটক করেছে পুলিশ।

বুধবার (১৩ ডিসেম্বর) সন্ধ্যায় পুলিশের গোপন অভিযানে খুলনা সরকারি পলিটেকনিক ইনস্টিটিউটের পরিত্যক্ত একটি ভবন থেকে কুকুরের মাংস বিক্রি চক্রের মূলহোতাসহ চার সদস্যকে হাতেনাতে আটক করা হয়।

খালিশপুর থানার ওসি মো. আনোয়ার হোসেন জানান, আটকদের মধ্যে তিন জন কিশোর। তারা সবাই ওই পলিটেকনিক ইনস্টিটিউটের আশপাশের এলাকার বাসিন্দা।

আটক অন্যজন হলেন খালিশপুরের বঙ্গবাসী মোড় এলাকার নর্থ জোনের হাবিবুর রহমানের ছেলে মো. আবু সাইদ (৩৭)। তিনিই এই মাংস দিয়ে বিরিয়ানি রান্না করে রাস্তার পাশে প্রায় এক মাস ধরে অল্প দামে বিক্রি করছিলেন। এই বিরিয়ানি নগরবাসীর অনেকের পছন্দের খাবার। তাই বিরিয়ানির ব্যবসাও ছিল রমরমা।

ওসি আনোয়ার বলেন, পরিত্যক্ত ভবনটি থেকে কয়েকদিন ধরে দুর্গন্ধ পাচ্ছিলেন স্থানীয়রা। বুধবার বিকালে একটি কুকুর নিয়ে ওই ভবনে চার জনকে ঢুকতে দেখে কয়েকজন স্থানীয় তাদের পিছু নেন। তারা গিয়ে দেখেন, কুকুরটিকে মেরে মাংস কাটার প্রস্তুতি চলছে। পরে তারা পুলিশে খবর দেন।

ওসি আরও বলেন, ওই ভবন থেকে হাত-পা বাঁধা গলাকাটা একটি কুকুর এবং অনেকগুলো কুকুরের চামড়া ও হাড় উদ্ধার করা হয়েছে। আটক করা হয়েছে চার জনকে।

“আটকরা জানিয়েছেন তারা প্রায় এক মাস ধরে কুকুরের মাংস দিয়ে বিরিয়ানির ব্যবসা করছিলেন। খালিশপুরের বঙ্গবাসী এলাকায় প্রতি প্লেট বিরিয়ানি মাত্র ৪০-৬০ টাকায় বিক্রি করতেন তারা।”

ওসি জানান, জেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ও প্রাণিসম্পদ অধিদপ্তরের কর্মকর্তারা ঘটনাস্থলে গিয়েছিলেন। প্রাণী সম্পদ অধিদপ্তরের পক্ষ থেকে অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে প্রাণী কল্যাণ আইনে মামলা করা হবে।

ট্যাগস

কুকুরের মাংসের বিরিয়ানি!

আপডেট সময় ১২:৩৫ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ১৪ ডিসেম্বর ২০২৩

খুলনায় কুকুরের মাংস দিয়ে তৈরি বিরিয়ানি বিক্রি করার অভিযোগে চার জনকে আটক করেছে পুলিশ।

বুধবার (১৩ ডিসেম্বর) সন্ধ্যায় পুলিশের গোপন অভিযানে খুলনা সরকারি পলিটেকনিক ইনস্টিটিউটের পরিত্যক্ত একটি ভবন থেকে কুকুরের মাংস বিক্রি চক্রের মূলহোতাসহ চার সদস্যকে হাতেনাতে আটক করা হয়।

খালিশপুর থানার ওসি মো. আনোয়ার হোসেন জানান, আটকদের মধ্যে তিন জন কিশোর। তারা সবাই ওই পলিটেকনিক ইনস্টিটিউটের আশপাশের এলাকার বাসিন্দা।

আটক অন্যজন হলেন খালিশপুরের বঙ্গবাসী মোড় এলাকার নর্থ জোনের হাবিবুর রহমানের ছেলে মো. আবু সাইদ (৩৭)। তিনিই এই মাংস দিয়ে বিরিয়ানি রান্না করে রাস্তার পাশে প্রায় এক মাস ধরে অল্প দামে বিক্রি করছিলেন। এই বিরিয়ানি নগরবাসীর অনেকের পছন্দের খাবার। তাই বিরিয়ানির ব্যবসাও ছিল রমরমা।

ওসি আনোয়ার বলেন, পরিত্যক্ত ভবনটি থেকে কয়েকদিন ধরে দুর্গন্ধ পাচ্ছিলেন স্থানীয়রা। বুধবার বিকালে একটি কুকুর নিয়ে ওই ভবনে চার জনকে ঢুকতে দেখে কয়েকজন স্থানীয় তাদের পিছু নেন। তারা গিয়ে দেখেন, কুকুরটিকে মেরে মাংস কাটার প্রস্তুতি চলছে। পরে তারা পুলিশে খবর দেন।

ওসি আরও বলেন, ওই ভবন থেকে হাত-পা বাঁধা গলাকাটা একটি কুকুর এবং অনেকগুলো কুকুরের চামড়া ও হাড় উদ্ধার করা হয়েছে। আটক করা হয়েছে চার জনকে।

“আটকরা জানিয়েছেন তারা প্রায় এক মাস ধরে কুকুরের মাংস দিয়ে বিরিয়ানির ব্যবসা করছিলেন। খালিশপুরের বঙ্গবাসী এলাকায় প্রতি প্লেট বিরিয়ানি মাত্র ৪০-৬০ টাকায় বিক্রি করতেন তারা।”

ওসি জানান, জেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ও প্রাণিসম্পদ অধিদপ্তরের কর্মকর্তারা ঘটনাস্থলে গিয়েছিলেন। প্রাণী সম্পদ অধিদপ্তরের পক্ষ থেকে অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে প্রাণী কল্যাণ আইনে মামলা করা হবে।