ঢাকা , রবিবার, ২৩ জুন ২০২৪, ৯ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

সৌদি আরবে এক সপ্তাহে ১৯ হাজারের বেশি অভিবাসী গ্রেপ্তার

  • ডেস্ক :
  • আপডেট সময় ০৩:২৬ অপরাহ্ন, রবিবার, ২৮ জানুয়ারী ২০২৪
  • 80

আবাসন, শ্রম এবং সীমান্তের নিরাপত্তা বিধি লঙ্ঘনের কারণে এক সপ্তাহে ১৯ হাজার ৩২১ জনকে গ্রেফতার করেছে সৌদি কর্তৃপক্ষ। সৌদি প্রেস এজেন্সির এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানানো হয়েছে। একটি সরকারি প্রতিবেদন অনুযায়ী, মোট ১১ হাজার ৪২৭ জনকে আবাসিক আইন লঙ্ঘনের জন্য গ্রেফতার করা হয়েছে।

এছাড়া আরও ৪ হাজার ৬৯৭ জনকে অবৈধভাবে সীমান্ত অতিক্রম করার প্রচেষ্টার জন্য এবং আরও তিন হাজার ১৯৭ জনকে শ্রম-সম্পর্কিত অন্যান্য কারণে গ্রেফতার করা হয়।

ওই প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, সৌদিতে অবৈধভাবে প্রবেশের চেষ্টা করা এক হাজার ৭০ জন ব্যক্তির মধ্যে ৩১ শতাংশ ইয়েমেনি, ৬৭ শতাংশ ইথিওপিয়ান এবং দুই শতাংশ অন্যান্য দেশের নাগরিক।

এছাড়া আরও ১৯৩ জন সৌদি থেকে প্রতিবেশী দেশে পাড়ি দেওয়ার চেষ্টার সময় ধরা পড়ে এবং এসব কাজে সহায়তার জন্য আরও ১১ জনকে আটক করা হয়েছে।

সৌদির স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় বলেছে, অবৈধভাবে প্রবেশে সহায়তার চেষ্টাকারী ব্যক্তিদের সর্বোচ্চ ১৫ বছরের কারাদণ্ড এবং ১০ লাখ সৌদি রিয়াল জরিমানা দিতে হবে। একই সঙ্গে তাদের যানবাহন এবং সম্পদও বাজেয়াপ্ত করা হবে।

ট্যাগস

সৌদি আরবে এক সপ্তাহে ১৯ হাজারের বেশি অভিবাসী গ্রেপ্তার

আপডেট সময় ০৩:২৬ অপরাহ্ন, রবিবার, ২৮ জানুয়ারী ২০২৪

আবাসন, শ্রম এবং সীমান্তের নিরাপত্তা বিধি লঙ্ঘনের কারণে এক সপ্তাহে ১৯ হাজার ৩২১ জনকে গ্রেফতার করেছে সৌদি কর্তৃপক্ষ। সৌদি প্রেস এজেন্সির এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানানো হয়েছে। একটি সরকারি প্রতিবেদন অনুযায়ী, মোট ১১ হাজার ৪২৭ জনকে আবাসিক আইন লঙ্ঘনের জন্য গ্রেফতার করা হয়েছে।

এছাড়া আরও ৪ হাজার ৬৯৭ জনকে অবৈধভাবে সীমান্ত অতিক্রম করার প্রচেষ্টার জন্য এবং আরও তিন হাজার ১৯৭ জনকে শ্রম-সম্পর্কিত অন্যান্য কারণে গ্রেফতার করা হয়।

ওই প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, সৌদিতে অবৈধভাবে প্রবেশের চেষ্টা করা এক হাজার ৭০ জন ব্যক্তির মধ্যে ৩১ শতাংশ ইয়েমেনি, ৬৭ শতাংশ ইথিওপিয়ান এবং দুই শতাংশ অন্যান্য দেশের নাগরিক।

এছাড়া আরও ১৯৩ জন সৌদি থেকে প্রতিবেশী দেশে পাড়ি দেওয়ার চেষ্টার সময় ধরা পড়ে এবং এসব কাজে সহায়তার জন্য আরও ১১ জনকে আটক করা হয়েছে।

সৌদির স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় বলেছে, অবৈধভাবে প্রবেশে সহায়তার চেষ্টাকারী ব্যক্তিদের সর্বোচ্চ ১৫ বছরের কারাদণ্ড এবং ১০ লাখ সৌদি রিয়াল জরিমানা দিতে হবে। একই সঙ্গে তাদের যানবাহন এবং সম্পদও বাজেয়াপ্ত করা হবে।