ঢাকা , রবিবার, ১৯ মে ২০২৪, ৫ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

বিশ্বরেকর্ড করা দীর্ঘ ট্রাফিক জ্যাম

  • ডেস্ক :
  • আপডেট সময় ১০:২১ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ১৪ মে ২০২৪
  • 5

যানজট, ট্রাফিক জ্যামে ঘণ্টার পর ঘণ্টা বসে থাকার অভিজ্ঞতা আমাদের সবারই কমবেশি আছে। অনেকের কাছে এটি নিত্যদিনের চিত্র। জ্যামে অনেক সময় এমন হয় যে দুই-তিন ঘণ্টাও এক জায়গায় বসে থাকতে হয়। শুধু এটি আমাদের ঢাকা শহরের দৃশ্য নয়, বিশ্বের অনেক শহরেই এমন চিত্র নিত্যদিনের।

তবে জানেন কি, এক শহরে এমন ট্রাফিক জ্যাম শুরু হয়েছিল যা স্থায়ী ছিল ১২ দিন। হ্যাঁ, ঠিকই শুনেছেন। ১২দিন হাজার হাজার গাড়ি এক জায়গায় আটকে ছিল। এটি বিশ্বের অন্যতম উন্নত ও ব্যস্ততম দেশ চীনের জাতীয় মহাসড়ক ১১০-এ। ২০১০ সালের ১৪ আগস্ট, চীন দেশে হয়েছিল এই জ্যাম। মোট ১২ দিন ধরে এই যানজট চলেছিল। থমকে গিয়েছিল জনজীবন।

১০০ কিলোমিটার এলাকাজুড়ে এই জ্যাম ছড়িয়ে পড়েছিল। যা বিশ্বরেকর্ড করেছিল জ্যামের ইতিহাসে। মঙ্গোলিয়া থেকে বেইজিং পর্যন্ত কয়লা ও নির্মাণ সামগ্রী বহনকারী ট্রাকের কারণে এই বীভৎস জ্যাম হয়েছিল। তার সঙ্গে বেইজিং ও তিব্বত সংযোগকারী মহাসড়ক সারাইয়ের কাজও চলছিল।

সূত্রের দাবি, প্রতিটি গাড়ি প্রতিদিন গড়ে ১ কিলোমিটার দূরত্ব অতিক্রম করেছে। কিছু গাড়ির কয়েকজন চালক ৫ দিন যানজটে আটকে ছিলেন বলে জানা গিয়েছে।এর ফলে গাড়িগুলিই হয়ে গিয়েছিল পথচারীদের অস্থায়ী বাড়িঘর। ক্ষুধা এবং তৃষ্ণা সহ্য করে দিনের পর দিন কষ্ট করেছিলেন সকলে।

দুর্ভোগের সুযোগ নিয়ে চড়া দামে খাবার ও পানি বিক্রি শুরু করেছিলেন স্থানীয় বাসিন্দারা। ফেরি করে করে পানি ও খাবার বিক্রি করেন তারা।

কর্তৃপক্ষ রাতে আরও কিছু ট্রাক বেইজিংয়ে প্রবেশে অনুমতি দিয়ে যান চলাচলের গতি বাড়ানোর চেষ্টা করে। ট্রাক কোম্পানিগুলোকে অন্য রুট নিতে বলা হয়েছিল। অবশেষে ২৬ আগস্ট নাগাদ যানবাহনের ওই জট খুলে যায়।

সূত্র: টাইমস অব ইন্ডিয়া

ট্যাগস
জনপ্রিয় সংবাদ

বিশ্বরেকর্ড করা দীর্ঘ ট্রাফিক জ্যাম

আপডেট সময় ১০:২১ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ১৪ মে ২০২৪

যানজট, ট্রাফিক জ্যামে ঘণ্টার পর ঘণ্টা বসে থাকার অভিজ্ঞতা আমাদের সবারই কমবেশি আছে। অনেকের কাছে এটি নিত্যদিনের চিত্র। জ্যামে অনেক সময় এমন হয় যে দুই-তিন ঘণ্টাও এক জায়গায় বসে থাকতে হয়। শুধু এটি আমাদের ঢাকা শহরের দৃশ্য নয়, বিশ্বের অনেক শহরেই এমন চিত্র নিত্যদিনের।

তবে জানেন কি, এক শহরে এমন ট্রাফিক জ্যাম শুরু হয়েছিল যা স্থায়ী ছিল ১২ দিন। হ্যাঁ, ঠিকই শুনেছেন। ১২দিন হাজার হাজার গাড়ি এক জায়গায় আটকে ছিল। এটি বিশ্বের অন্যতম উন্নত ও ব্যস্ততম দেশ চীনের জাতীয় মহাসড়ক ১১০-এ। ২০১০ সালের ১৪ আগস্ট, চীন দেশে হয়েছিল এই জ্যাম। মোট ১২ দিন ধরে এই যানজট চলেছিল। থমকে গিয়েছিল জনজীবন।

১০০ কিলোমিটার এলাকাজুড়ে এই জ্যাম ছড়িয়ে পড়েছিল। যা বিশ্বরেকর্ড করেছিল জ্যামের ইতিহাসে। মঙ্গোলিয়া থেকে বেইজিং পর্যন্ত কয়লা ও নির্মাণ সামগ্রী বহনকারী ট্রাকের কারণে এই বীভৎস জ্যাম হয়েছিল। তার সঙ্গে বেইজিং ও তিব্বত সংযোগকারী মহাসড়ক সারাইয়ের কাজও চলছিল।

সূত্রের দাবি, প্রতিটি গাড়ি প্রতিদিন গড়ে ১ কিলোমিটার দূরত্ব অতিক্রম করেছে। কিছু গাড়ির কয়েকজন চালক ৫ দিন যানজটে আটকে ছিলেন বলে জানা গিয়েছে।এর ফলে গাড়িগুলিই হয়ে গিয়েছিল পথচারীদের অস্থায়ী বাড়িঘর। ক্ষুধা এবং তৃষ্ণা সহ্য করে দিনের পর দিন কষ্ট করেছিলেন সকলে।

দুর্ভোগের সুযোগ নিয়ে চড়া দামে খাবার ও পানি বিক্রি শুরু করেছিলেন স্থানীয় বাসিন্দারা। ফেরি করে করে পানি ও খাবার বিক্রি করেন তারা।

কর্তৃপক্ষ রাতে আরও কিছু ট্রাক বেইজিংয়ে প্রবেশে অনুমতি দিয়ে যান চলাচলের গতি বাড়ানোর চেষ্টা করে। ট্রাক কোম্পানিগুলোকে অন্য রুট নিতে বলা হয়েছিল। অবশেষে ২৬ আগস্ট নাগাদ যানবাহনের ওই জট খুলে যায়।

সূত্র: টাইমস অব ইন্ডিয়া